বিজ্ঞপ্তি :

সাংবাদিক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2023 :- বহির্বিশ্ব সহ বাংলাদেশের সকল বিভাগ, জেলা, উপজেলা এবং বিশ্ববিদ্যালয় (আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আবেদনের যোগ্যতা :- বয়স:- সর্বনিম্ন ২০ বছর হতে হবে। শিক্ষাগত যোগ্যতা:- আবেদনকারীকে সর্বনিন্ম এইচএসসি পাশ হতে হবে। কমপক্ষে ১ বছরে অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। (তবে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিদের ক্ষেত্রে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী হতে হবে অথবা কমপক্ষে ১ বছরের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে।) অতিরিক্ত যোগ্যতা:- স্মার্ট ফোন থাকতে হবে। নিজেদের প্রকাশিত নিউজ অবশ্যই নিজে ফেসবুকে শেয়ার করতে হবে একই সঙ্গে বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে প্রচার করতে হবে। এছাড়াও প্রতিদিন অন্তত ০৩ টি নিউজ শেয়ার করতে হবে। (বাধ্যতামূলক) অবশ্যই অফিস থেকে দেয়া এ্যাসাইনমেন্ট সম্পন্ন করতে হবে। নিউজের ছবি এবং নিউজের সঙ্গে ভিডিও পাঠাতে হবে ( ছবি কপি করা যাবে না কপি করলে তা উল্লেখ করতে হবে)। বেতন ভাতা :- মাসিক বেতন ও বিজ্ঞাপনের কমিশন আলোচনা সাপেক্ষে। আবেদন করতে আপনাকে যা করতে হবে :- আমাদের ই-মেইলের ঠিকানায় ছবিসহ জীবন বৃত্তান্ত (Cv), সিভির সঙ্গে জাতীয় পরিচয়পত্র এর কপি, সর্ব্বোচ্চ শিক্ষাগত সনদ এর কপি, পাসপোর্ট সাইজের ছবি, অভিজ্ঞতা থাকলে প্রমাণ স্বরুপ তথ্য প্রেরণ করতে হবে । মনে রাখবেন :- সিভি অবশ্যই নিজের ব্যক্তিগত মেইল থেকে পাঠাতে হবে। কারণ যে মেইল থেকে সিভি পাঠাবেন অফিস থেকে সেই মেইলেই রিপ্লাই দেওয়া হবে। ই–মেইল পাঠাতে বিষয় বস্তু অর্থাৎ Subject–এ লিখতে হবে কোন জেলা/ উপজেলা/ ক্যাম্পাস প্রতিনিধি। আমাদের সাথে যোগাযোগের ঠিকানা :- Email:- bondhantv@gmail.com টেলিফোন:- +8809638788837, +8801911040586 (Whatsapp), সকাল ৯টা থেকে রাত ১১.৫৯ পর্যন্ত। আমাদের নিয়োগ পদ্ধতি :- প্রথমে আপনার কাগজ যাচাই বাছাই করা হবে। আপনি প্রাথমিক ভাবে চুড়ান্ত হলে সেটি সম্পাদকের কাছে প্রেরণ করা হবে। সর্বশেষ সম্পাদক কর্তৃক চুড়ান্ত হলে আপনার সাথে যোগাযোগ করা হবে মোবাইল এবং ইমেল এর মাধ্যমে। আপনাকে আমাদের ট্রেনিং এবং অবজারভেশন ফেসবুক গ্রুপে এড করা হবে। তারপর আপনাকে ৫ দিন নিউজ পাঠাতে বলা হবে। এর পর চুড়ান্ত নিয়োগের ১ মাসের মধ্যে আপনার কার্ড প্রেরণ করা হবে। নিউজ পাঠানোর মাধ্যম:- আমাদের মেইল আইডি, মেসেঞ্জার গ্রুপ, ইউজার আইডির মাধ্যমে পাঠাতে পারবেন। নিউজ অবশ্যই ইউনিকোড ফরমেটে পাঠাতে হবে। নিউজের সাথে ছবি থাকলে তা পাঠাতে হবে। নিউজের যদি কোন তথ্য প্রমাণ থাকে তবে তা প্রেরণ করতে হবে। বি:দ্র: সকল শর্ত পরিবর্তন, পরিমার্জন এবং বর্ধিত করনের অধিকার কর্তৃপক্ষের কাছে সংরক্ষিত। মন্তব্য: BondhanTv – বন্ধন টিভি আমাদের নিজস্ব আয়ে চ্যানেলটি পরিচালিত হয়। আমরা কোন গ্রুপ বা কোম্পানির অর্থ বা কোন স্পন্সরের অর্থদ্বারা পরিচালিত নয়।

বিএনপির ৫৩১ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেফতার ৬


বন্ধন টিভি ডেস্ক
প্রকাশের সময় : আগস্ট ১৯, ২০২৩, ৮:০৯ অপরাহ্ণ
বিএনপির ৫৩১ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেফতার ৬

বিএনপির ৫৩১ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেফতার ৬। বিএনপির ৫৩১ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা, গ্রেফতার ৬বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি ও সুচিকিৎসার দাবিতে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে নেত্রকোনায় বিক্ষোভ ও পদযাত্রা কর্মসূচি করেছে জেলা বিএনপি।

শনিবার সকালে শহরের বনোয়াপাড়া এলাকায় এ কর্মসূচির শেষে সেখানে ককটেল বিস্ফোরণ ও সিএনজি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনায় দলটির অঙ্গসংগঠনের ছয়জন নেতাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে ৩১ জনের নাম উল্লেখসহ ৫০০ জনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে।

গ্রেফতার নেতারা হলেন- জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি সজল তালুকদার, সদর উপজেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক সৈয়দ মোকসেদুল আলম, যুগ্ম আহ্বায়ক সারোয়ার শাহেদ, মদন উপজেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক অলী উল্লাহ, সদরের আমতলা ইউনিয়ন যুবদলের সদস্য সচিব সাফায়াত হোসেন ও একই ইউনিয়নের শ্রমিক দলের সদস্য আব্দুল মান্নান।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সকাল আটটার দিকে শহরের বনোয়াপাড়া মোড় এলাকায় নেত্রকোনা বিএনপির আহ্বায়ক ডা. মো. আনোয়ারুল হক ও সদস্য সচিব মো. রফিকুল ইসলাম হিলালীর নেতৃত্বে দলীয় নেতাকর্মীরা জড়ো হন। সেখানে বক্তব্য শেষে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে আবু আব্বাছ ডিগ্রি কলেজের সামনে শেষ হয়। পরে নেতাকর্মীরা চলে যেতে থাকেন। একপর্যায়ে কুড়পাড় সিএনজি স্টেশন এলাকায় দুর্বৃত্তরা দুটি ককটেল বিস্ফোরণ ও একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশা ভাঙচুর চালায়। এ সময় উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা ছয়জন যুব ও ছাত্রদল নেতাকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। পরে দুপুরে নেত্রকোনা মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) সাদ্দাম হোসেন বাদী হয়ে ৩১ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ৫০০ জনকে আসামি করে নাশকতা ও বিস্ফোরক আইনে মামলা করেন। মামলায় আটক ছয়জনকে গ্রেফতার দেখানো হয়।

এ ব্যাপারে নেত্রকোনা মডেল থানার ওসি মো. লুৎফুল হক বলেন, বিএনপির ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা অনুষ্ঠানের নামে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি সৃষ্টি করে। তারা দুটি ককটেল বিস্ফোরণসহ অটোরিকশা ভাঙচুর চালায়। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ছয়জনকে আটক করার পাশাপাশি চারটি অবিস্ফোরিত ককটেল, কিছু দেশীয় অস্ত্র জব্দ করা হয়েছে। ঘটনায় নাশকতা ও বিস্ফোরক আইনে ৩১ জনের নামসহ আরও অজ্ঞাত ৫০০ জনের বিরুদ্ধে পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করেছে। মামলায় গ্রেফতার হওয়া আসামিদের বিকালে আদালতে সোপর্দ করা হয়। অন্য আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।’

আরও পড়ুনঃ দলীয় প্রশাসন দিয়ে নিরপেক্ষ কর্মকর্তা পাওয়া দুষ্কর

তবে এ ব্যাপারে জেলা বিএনপির সদস্য সচিব রফিকুল ইসলাম হিলালী বলেন, শনিবার সকালে শান্তিপূর্ণভাবে কর্মসূচি পালন শেষে নেতাকর্মীরা ফিরে যাচ্ছিলেন। এ সময় ছাত্রলীগ নামধারী একদল যুবক কুড়পাড় সিএনজি স্টেশন এলাকায় একটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায় ও সেখানে সিএনজি ভাঙচুর চালায়। ওই দুর্বৃত্তদের হামলায় আমাদের শ্রমিকদলের নেতা খায়রুল ইসলাম, শামছু মিয়া, ছাত্রদল নেতা রাকিব মিয়া, রফিকুল ইসলাম, যুবদলকর্মী বজলুর রাশেদসহ আটজন আহত হন। ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা পরিকল্পিতভাবে ককটেল বিস্ফোরণ ও ভাঙচুর করে বিএনপির ওপর দোষ চাপাচ্ছে।’

এ ব্যপারে জানতে চাইলে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সোবায়েল আহমেদ খান বলেন, ছাত্রলীগের কোনো নেতাকর্মী হামলা বা ভাঙচুরের ঘটনার সঙ্গে জড়িত নয়। বিএনপিই ককটেল বিস্ফোরণ ও ভাঙচুর করে আমাদের সংগঠনের বিরুদ্ধে অপপ্রচার করছে।

 

Spread the love
Link Copied !!