বিজ্ঞপ্তি :

সাংবাদিক নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2023 :- বহির্বিশ্ব সহ বাংলাদেশের সকল বিভাগ, জেলা, উপজেলা এবং বিশ্ববিদ্যালয় (আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে) প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আবেদনের যোগ্যতা :- বয়স:- সর্বনিম্ন ২০ বছর হতে হবে। শিক্ষাগত যোগ্যতা:- আবেদনকারীকে সর্বনিন্ম এইচএসসি পাশ হতে হবে। কমপক্ষে ১ বছরে অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। (তবে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিদের ক্ষেত্রে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী হতে হবে অথবা কমপক্ষে ১ বছরের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে।) অতিরিক্ত যোগ্যতা:- স্মার্ট ফোন থাকতে হবে। নিজেদের প্রকাশিত নিউজ অবশ্যই নিজে ফেসবুকে শেয়ার করতে হবে একই সঙ্গে বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে প্রচার করতে হবে। এছাড়াও প্রতিদিন অন্তত ০৩ টি নিউজ শেয়ার করতে হবে। (বাধ্যতামূলক) অবশ্যই অফিস থেকে দেয়া এ্যাসাইনমেন্ট সম্পন্ন করতে হবে। নিউজের ছবি এবং নিউজের সঙ্গে ভিডিও পাঠাতে হবে ( ছবি কপি করা যাবে না কপি করলে তা উল্লেখ করতে হবে)। বেতন ভাতা :- মাসিক বেতন ও বিজ্ঞাপনের কমিশন আলোচনা সাপেক্ষে। আবেদন করতে আপনাকে যা করতে হবে :- আমাদের ই-মেইলের ঠিকানায় ছবিসহ জীবন বৃত্তান্ত (Cv), সিভির সঙ্গে জাতীয় পরিচয়পত্র এর কপি, সর্ব্বোচ্চ শিক্ষাগত সনদ এর কপি, পাসপোর্ট সাইজের ছবি, অভিজ্ঞতা থাকলে প্রমাণ স্বরুপ তথ্য প্রেরণ করতে হবে । মনে রাখবেন :- সিভি অবশ্যই নিজের ব্যক্তিগত মেইল থেকে পাঠাতে হবে। কারণ যে মেইল থেকে সিভি পাঠাবেন অফিস থেকে সেই মেইলেই রিপ্লাই দেওয়া হবে। ই–মেইল পাঠাতে বিষয় বস্তু অর্থাৎ Subject–এ লিখতে হবে কোন জেলা/ উপজেলা/ ক্যাম্পাস প্রতিনিধি। আমাদের সাথে যোগাযোগের ঠিকানা :- Email:- bondhantv@gmail.com টেলিফোন:- +8802226663556, +8801911040586 (Whatsapp), সকাল ৯টা থেকে রাত ১১.৫৯ পর্যন্ত। আমাদের নিয়োগ পদ্ধতি :- প্রথমে আপনার কাগজ যাচাই বাছাই করা হবে। আপনি প্রাথমিক ভাবে চুড়ান্ত হলে সেটি সম্পাদকের কাছে প্রেরণ করা হবে। সর্বশেষ সম্পাদক কর্তৃক চুড়ান্ত হলে আপনার সাথে যোগাযোগ করা হবে মোবাইল এবং ইমেল এর মাধ্যমে। আপনাকে আমাদের ট্রেনিং এবং অবজারভেশন ফেসবুক গ্রুপে এড করা হবে। তারপর আপনাকে ৫ দিন নিউজ পাঠাতে বলা হবে। এর পর চুড়ান্ত নিয়োগের ১ মাসের মধ্যে আপনার কার্ড প্রেরণ করা হবে। নিউজ পাঠানোর মাধ্যম:- আমাদের মেইল আইডি, মেসেঞ্জার গ্রুপ, ইউজার আইডির মাধ্যমে পাঠাতে পারবেন। নিউজ অবশ্যই ইউনিকোড ফরমেটে পাঠাতে হবে। নিউজের সাথে ছবি থাকলে তা পাঠাতে হবে। নিউজের যদি কোন তথ্য প্রমাণ থাকে তবে তা প্রেরণ করতে হবে। বি:দ্র: সকল শর্ত পরিবর্তন, পরিমার্জন এবং বর্ধিত করনের অধিকার কর্তৃপক্ষের কাছে সংরক্ষিত। মন্তব্য: BondhanTv – বন্ধন টিভি আমাদের নিজস্ব আয়ে চ্যানেলটি পরিচালিত হয়। আমরা কোন গ্রুপ বা কোম্পানির অর্থ বা কোন স্পন্সরের অর্থদ্বারা পরিচালিত নয়।

তদবির করে দলে ঢুকেছিলেন সাব্বির!


খেলাধুলা ডেস্ক
প্রকাশের সময় : অক্টোবর ১৬, ২০২২, ১:৩০ অপরাহ্ণ
তদবির করে দলে ঢুকেছিলেন সাব্বির!

টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের নিয়মিত ওপেনারদের ব্যর্থতার কারণে ‘মেকশিফট’ ওপেনার হিসেবে দলে জায়গা পেয়েছিলেন সাব্বির রহমান। কিন্তু চার ম্যাচ খেলে একটিতেও নিজের যোগ্যতার প্রমাণ দিতে পারেননি তিন বছর পর দলে ফেরা এ ব্যাটসম্যান।

 

চার ম্যাচে সব মিলিয়ে তার রান ২৯। সর্বোচ্চ ১৪। অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষেও টিম ম্যানেজমেন্ট সাফল্য না পেয়ে আবার নিয়মিত ওপেনারেই ফিরে গেছে। যার কারণে কপাল পুড়েছে তার। কিন্তু এর মধ্যেই জানা গেল, তদবির করে নাকি দলে ঢুকেছিলেন সাব্বির। একটি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এমন চাঞ্চল্যকর তথ্য।

মেধার শূন্যতা কখনোই চাপা থাকে না। আর তাই, এবার যেন চরম শিক্ষাটাই পেলেন সাব্বির রহমান। এই ব্যাটসম্যানের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে, ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের (ডিপিএল) পর থেকে জাতীয় দলে ফিরতে লবিং করেছিলেন তিনি।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) একটি সূত্রে জানা গেছে, নির্বাচকদের কাছে টানা ধরনা দিয়ে ব্যর্থ হন সাব্বির। একপর্যায়ে একজন পরিচালকের দ্বারস্থ কান্নাকাটি করে তার মন জয় করে নেন এই ব্যাটসম্যান। শেষ পর্যন্ত জাতীয় দলের স্বার্থ জলাঞ্জলি দিয়ে সাব্বিরকে দলে ঢুকান ওই পরিচালক!

যদিও প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু সাংবাদিকদের জানান, এশিয়া কাপ শুরুর আগে একজন খেলোয়াড়কে নির্দিষ্ট পজিশনে ফিট করার পরিকল্পনা ছিল পরামর্শকের। এ কারণে সাব্বিরকে খেলানোর পরিকল্পনা ছিল।

তিনি বলেন, একজন খেলোয়াড়ের দায়িত্ব সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। টি-টোয়েন্টি এমন একটি খেলা, যেটি থেকে চোখ ফেরানো যায় না। এখানে সচেতন হতে হবে। কারণ এখানে ওভারগুলো খুব দ্রুত শেষ হয়। এখানে আত্মমূল্যায়ন খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

আরও পড়ুন:  গোপনীয়তার নীতি

কিন্তু কিন্তু কেঁদে-কেটে লবিং করেও শেষ পর্যন্ত লাভ হলো না। এশিয়া কাপ, দ্বিপক্ষীয় ও ত্রিদেশীয় সিরিজে টানা ব্যর্থ হন ৩০ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যান। আর তাই, সাব্বির রহমানের পারফরম্যান্সে টিম ম্যানেজমেন্ট সন্তুষ্ট না হওয়ায় বাদ পড়েন।

নাম গোপন রাখার শর্তে জাতীয় দল সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা জানান, ‘যেভাবেই হোক, জাতীয় দলে একটা সুযোগ দেয়া হয়েছিল সাব্বিরকে। এটা কাজে লাগাতে পারত সে। টানা চার ম্যাচ খেলে রান তো করেইনি, উল্টো মিস ফিল্ডিং করে হাসতে দেখেছি। উল্টো টিকটক বানিয়ে হাসিঠাট্টার পাত্র হয়েছে। সোজা পথে দলে আসেনি তো, তাই মূল্যটা বুঝতে পারেনি। এভাবে কাউকে দলে নেয়া ঠিক না। শুধু শুধুই বিশ্বকাপ দলে নেয়া হয়েছিল তাকে।’

অবশেষে চূড়ান্ত স্কোয়ার্ড থেকে বাদ পড়ে মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনকে সঙ্গে নিয়ে দেশে ফিরে এলেন সাব্বির। অস্ট্রেলিয়ার বিমানে না চড়ে শনিবার (১৫ অক্টোবর) রাতে তারা ফেরেন ঢাকায়।

Spread the love
Link Copied !!